বেসিক ট্রেড স্কিলস ডেভেলপমেন্ট ফোরামের আলোচনায় “বঙ্গবন্ধুর জীবন-দর্শন ও কারিগরি শিক্ষা”

বেসিক ট্রেড স্কিলস ডেভেলপমেন্ট ফোরামের আলোচনায় “বঙ্গবন্ধুর জীবন-দর্শন ও কারিগরি শিক্ষা”

স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর ৪৬তম শাহাদৎ বার্ষিকীতে শ্রদ্ধাঞ্জলি জ্ঞাপন ও ভার্চুয়াল আলোচনা সভা আয়োজন করে কারিগরি শিক্ষার একমাত্র একটিভ সংগঠন বেসিক ট্রেড স্কিলস ডেভেলপমেন্ট ফোরাম। উক্ত আয়োজনে প্রধান অতিথি ছিলেন মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মাহমুদ জামান, চেয়ারম্যান (ভারপ্রাপ্ত) ও সচিব, বাকাশিবো, ঢাকা।

এছাড়াও ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রকৌশলী ফরিদ উদ্দিন আহম্মেদ, পরিচালক (কারিকুলাম), মো: আবদুর রহমান, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, ড. মো: সুলতান হোসেন, উপ-পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, প্রকৌশলী হরিপদ চন্দ্র পাল, উপ-সচিব (রেজিষ্ট্রেশন) এবং বাংলাদেশের সকল জেলায় অবস্থিত কারিগরি শিক্ষাবোর্ডের অধীন পরিচালিত শর্টকোর্স এবং এডভান্স কোর্সের অধ্যক্ষ ও পরিচালক বৃন্দ।
সভায় সভাপতিত্ব করেন বেসিক ট্রেড স্কিলস ডেভেলপমেন্ট ফোরামের সভাপতি নিত্যানন্দ সরকার এবং সঞ্চালনায় ছিলেন সদস্য সচিব তোফাজ্জল হোসেন।


ভার্চুয়াল সভায় আলোচকবৃন্দ বঙ্গবন্ধুর জীবন-দর্শন ও কারিগরি শিক্ষার বিস্তার নিয়ে বিস্তর আলোচনা করেন। পাশাপাশি কারিগরি বোর্ডের চেয়ারম্যান মহোদয়কে কাছে পেয়ে আলোচনায় বক্তারা কারিগরি বোর্ডের চেয়ারম্যান মহোদয়ের নিকট কারিগরি শিক্ষার মান উন্নয়নে তথা সমগ্র বাংলাদেশের জনগনকে কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষিত করার জোর তাগিদ দেন।

কারিগরি বোর্ডের চেয়ারম্যান মহোদয়ের নিকট কিছু দাবি-দাওয়ার কথা তুলে ধরে গত এক বছরে বেসিক ট্রেড স্কিলস ডেভেলপমেন্ট ফোরাম গৃহীত কার্যক্রম সমূহ বর্ণনা করেন:
* ২৪ এপ্রিল, ২০২০ মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রণোদনা প্যাকেজে অন্তর্ভূক্তির জন্য আবেদন প্রেরণ। প্রতিলিপি-মাননীয়-শিক্ষা মন্ত্রী, অর্থ মন্ত্রী, পরিকল্পনা মন্ত্রী, মাননীয় প্রতিমন্ত্রী তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়, মাননীয় শিক্ষা উপ-মন্ত্রী, মহাপরিচালক, কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর ও চেয়ারম্যান বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড, ঢাকা বরাবর প্রেরণ করা হয়
* ১৬ মে ২০২০ কেন্দ্রীয় কমিটির পক্ষে ফোরামের সদস্য সচিব মো. তোফাজ্জল হোসেন পাবনা প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নিকট বেসিক ট্রেডের জন্য আর্থিক প্রণোদনার বিষয়ক সাংবাদিক সম্মেলন এবং ৫২৫ কোটি টাকা প্রণোদনার দাবী উত্থাপন।
* ২৭ জুন, ২০২০ “করোনা পরিস্থিতিতে কারিগরি শিক্ষা ও অনলাইন প্রশিক্ষণ” শীর্ষক ভার্চুয়্যাল আলোচনা। এতে প্রধান অতিথি উপস্থিত ছিলেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় ডাক ও টেলিযোযোগ মন্ত্রী জনাব মোস্তাফা জব্বার। বিশেষ অতিথি হিসেবে সংযুক্ত ছিলেন বাকাশিবো চেয়ারম্যানসহ অন্যান্য কতৃকর্মাবৃন্দ।
* ১৫ আগষ্ট, ২০২০ জাতীয় শোক দিবস পালন এবং ৩১ আগস্ট ২০২০ মুজিব শতবর্ষে কারিগরি শিক্ষা শীর্ষক ভার্চুয়্যাল আলোচনা অনুষ্ঠিত।
* ০৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০ দেশব্যাপী বেসিক ট্রেড প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠান সমূহ স্বাস্থ্য-বিধি মেনে খুলে দেয়া ও ক্লাস চালু করার জন্য অনুমতি প্রাপ্তির জন্য বিভাগীয় কমিশনার, জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের মাধ্যমে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগের মাননীয় সচিব মহোদয়ের নিকট স্মারকলিপি প্রদান।
* ১২ নভেম্বর,২০২০ইং তারিখে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব জনাব আমিনুল ইসলাম খান মহোদয়ের সাথে স্বাক্ষাত করে নি¤েœাক্ত প্রস্তাবনা প্রদান করেন-
১) প্রতিষ্ঠান খোলার চিঠি ইস্যু ও ক্লাশ পরিচালনা।
২) বেসিক ও এডভান্সড কোর্সের সনদ শিক্ষাসহ অন্যান্য ক্ষেত্রে প্রয়োগর প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণের দাবী।
* ১২ ডিসেম্বর ২০২০ যদিও মানছি দূরত্ব; তবুও আছি সংযুক্তি-এ প্রতিপাদ্য নিয়ে জাতীয়ভাবে উদযাপিত ৪র্থ ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস পালন। প্রধান অতিথি ছিলেন- গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় ডাক ও টেলিযোযোগ মন্ত্রী জনাব মোস্তাফা জব্বার।
* ০৮ ফেব্রæয়ারি ২০২১ বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ চেয়ারম্যান মহোদয়ের সাথে সাক্ষাত। আলোচনার বিষয়-
১) বেসিক ও এডভান্সড কোর্সের সনদ শিক্ষকতাসহ অন্যান্য ক্ষেত্রে প্রয়োগর প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণের দাবী।
এ ছাড়া সারা বছরব্যাপী বাকাশিবো বরাবর প্রতিষ্টান খোলা, অনলাইন ক্লাশ, রেজিস্ট্রেশন, পরীক্ষা গ্রহণ, ফি মওকুপসহ নানাবিধ কর্মসূচি পালন।

বেসিক ট্রেড স্কিলস ডেভেলপমেন্ট ফোরামের সভাপতি বাকাশিবো বরাবর আগামী দিনের প্রত্যাশা ব্যক্ত করে বলেন:
১। বেসিক কোর্সের ছাত্রপ্রতি প্রদেয় ফি দুই খাতে প্রদানের সুযোগ-
ক) রেজিস্ট্রেশন ফি ৫০ টাকা দিয়ে রেজিস্ট্রেশন
খ) সেসনের ৩য় কোয়ার্টারে অবশিষ্ট ফি প্রদানসহ ফরর্ম-ফিলআপের সুযোগ।
২। প্রতিষ্ঠানের বর্ধিত এফিলিয়েশন ফি স্থগিতকরণ।
৪। বাকাশিবো’র সকল ফি ডিজিটাল পদ্ধতিতে গ্রহণের উদ্যোগ ও হয়রানি কমিয়ে আনা।
৫। শর্টকোর্সের রেজিস্ট্রেশন ও এডমিট কার্ড অনলাইন প্রিন্ট সুবিধা।
৬। এডভান্সড সার্টিফিকেট কোর্সের দুটি সেসন (১. জানুয়ারি-ডিসেম্বর ও ২. জুলাই-জুন) স্বাভাবিকভাবে চলমান রাখা।
ক) জানুয়ারি-ডিসেম্বর ২০২১ এর রেজিস্ট্রেশনের জন্য উদ্যোগ।
৭। নীতিমালা আপডেটসহ এডভান্সড সার্টিফিকেট কোর্স পারচিালনায় নতুন প্রতিষ্ঠান এফিলিয়েশন, ট্রেড সংযোজন প্রক্রিয়া উন্মুক্ত করা।
ক) সিলেবাস-কারিকুলাম আপডেট করণ
খ) পরীক্ষার পূর্ণমান, মানবণ্টনসহ পরীক্ষা পদ্ধতি আপডেট করণ।
৮। মন্ত্রণালয়ের বিশেষ অনুমোদনে প্রতিষ্ঠান খোলা-রাখাসহ দ্রুত পেন্ডিং পরীক্ষাসমূহ গ্রহণের উদ্যোগ গ্রহণ করা।

আলোচানা অনুষ্টান সকল জেলার প্রায় ৮০জনের অধিক অধ্যক্ষ ও পরিচালকের সফল অংশগ্রহনে সমাপ্ত হয়।

Leave a Reply