দুই বছরেও শেষ হয়নি সেতুর কাজ, দুর্ভোগে ১০ গ্রামের মানুষ

দুই বছরেও শেষ হয়নি সেতুর কাজ, দুর্ভোগে ১০ গ্রামের মানুষ

-ময়মনসিংহের ধোবাউড়া উপজেলার পুড়াকান্দুলিয়া ইউপির পাতাম গ্রামের রাক্ষসখালী সেতুর পাশে সংযোগ সড়কে আরো একটি সেতু নির্মিত হচ্ছে। যার নির্মাণ ব্যয় ধরা হয়েছে ৩২ লাখ টাকা। তবে নির্মাণের নির্ধারিত সময় পার হলেও সেতুটির কাজ শেষ করতে পারেনি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান।

ফলে দুই বছর ধরে দুর্ভোগ সহ্য করে বাঁশের সাঁকো আর নৌকা ব্যবহার করে যাতায়াত করছেন ১০ গ্রামের লক্ষাধিক মানুষ। এলাকাবাসীর অভিযোগ, জনপ্রতিনিধি ও বিভিন্ন মহলে একাধিকবার অবগত করার পরও এ ভোগান্তি লাঘবে কোনো উদ্যোগ নেয়া হয়নি।

স্থানীয়রা জানান, উপজেলার পুড়াকান্দুলিয়া ইউপির বতিহালা, পুডিয়ারকান্দা, জিরাআলী, দর্শা, বাটুয়াকান্দা, টিগুরিয়া, রাজদেওমা, পাতাম ও চরেরভিটা গ্রামের মানুষের চলাচল সুবিধার জন্য সংযোগ সড়কটিতে সেতুর কাজ শুরু হয়। তবে প্রায় এক বছর ধরে অজানা কারণে বন্ধ রয়েছে এর কাজ। ফলে ভোগান্তির চরমে পৌঁছেছে বাসিন্দাদের।

টিগুরিয়া গ্রামের কৃষক নোয়াব আলী বলেন, দুই বছর আগে কাজ শুরু হয়েছিল। তবে বছরখানেক কোনো কাজই করছে না। এদিকে আমাদের বাজারে ধান বিক্রি করতে যেতে হয়। নৌকা নিয়ে পারাপার হতে আমাদের অনেক কষ্ট হচ্ছে।

বতিহালা গ্রামের শফিকুল ইসলাম নামে একজন বলেন, এই সংযোগ সড়কের সেতুটির কাজ শেষ না হওয়ার কারণে আমরা বৃদ্ধ, নারী ও শিশুসন্তান নিয়ে ধোবাউড়া সদরে হাসপাতালে যেতে পারছি না। অনেক সময় এখানে বাঁশের সাঁকো পার হতে গিয়ে দুর্ঘটনার শিকার হতে হয়।

Leave a Reply