“বাগেরহাট জেলার শরণখোলা উপ-নির্বাচনে বিপুল ভোটে বিজয়ী আওয়ামীলীগ প্রার্থী”

বাগেরহাট জেলার, শরণখোলায় উপজেলা পরিষদের উপ-নির্বাচনে বাবার স্থলাভিষিক্ত হলেন আওয়ামীলীগ মনোনিত নৌকার প্রার্থী রায়হান উদ্দিন শান্ত। তিনি ৫৬হাজার ১৮৮ ভোট পেয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। মঙ্গলবার রাত ৮টায় রিটার্নিং অফিসার ও জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ফারাজী বেনজির আহম্মেদ বেসরকারিভাবে এই ফলাফল ঘোষনা করেন। প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীদের মধ্যে জাতীয় পার্টির অ্যাডভোকেট শহিদুল ইসলাম ৭৬৭ভোট এবং বিএনপির প্রার্থী মতিয়ার রহমান খান পেয়েছেন ৬৭৩ ভোট।

গত বছরের (২০১৯) পাঁচ ডিসেম্বর তিনবারের নির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি কামাল উদ্দিন আকনের মৃত্যুতে পদটি শূণ্য হয়। এই শূণ্য পদে তার জ্যেষ্ঠ প্রত্র রায়হান উদ্দিন শান্তকে দল থেকে মনোনয়ন দেয় আওয়ামীলীগ।

রিটার্নিং অফিসার বেনজির আহম্মেদ জানান, উপজেলার চারটি ইউনিয়নের মোট ৩৩টি ভোট কেন্দ্রে শান্তিপূর্ণ ভোটগ্রহন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ৮৯ হাজার ৩৩৭ জন ভোটারের মধ্যে ৫৭হাজার ৯৪১ জন তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন। এর মধ্যে অবৈধ ভোটের সংখ্যা ৩১৩টি। যা শতকরা হিসাবে ভোট পড়েছে ৬৫ভাগ। এই ভোটের মাধ্যমে নির্বাচন কমিশনের প্রতি জনগণের আস্থা তৈরী হবে।

বিজয়ী প্রার্থী রায়হান উদ্দিন শান্ত তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায়  বলেন, প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা যে বিশ্বাস নিয়ে আমাকে মনোনয়ন দিয়েছেন আমি তাঁর সেই মর্যাদা রক্ষা করবো।

এদিকে, প্রতিদ্বন্দ্বি জাতীয় পাটির অ্যাডভোকেট শহিদুল ইসলাম  বলেন, রায়হান উদ্দিন শান্ত ব্যক্তিগতভাবে একজন ভাল মানুষ। তিনি বিজয়ী হওয়ায় আমি তাকে অভিনন্দন জানাই। বিএনপি’র প্রার্থী মতিয়ার রহমান খান বলেন, এ সরকারের আমলে সুষ্ঠু নির্বাচন আশা করা যায় না।

Please follow and like us: