সাবেক  মহিলা ইউপি সদস্যের বাড়িতে ডাকাতি

যশোরের শার্শার বাগআঁচড়ায় সাবেক  মহিলা ইউপি সদস্য মোছাঃ রাবেয়া খাতুনের বাড়িতে ডাকাতরা একটি সোনার চেইন ও নগদ আড়াই লক্ষ টাকা ডাকাতি করে নিয়ে গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার দিনগত রাত সাড়ে ৭টার সময় বাগআঁচড়া গ্রামে। এ ঘটনায় সাবেক  মহিলা ইউপি সদস্য মোছাঃ রাবেয়া খাতুনের বড় ছেলে আসাদুজ্জামান মিঠু বাগআঁচড়া আই সি পুলিশ কেন্দ্রে একটি অভিযোগ দিয়েছে বলে জানা গেছে।
বাগআঁড়ার সাবেক  মহিলা ইউপি সদস্য মোছাঃ রাবেয়া খাতুন জানান, সোমবার সন্ধায় তার স্বামী তোফাজ্জেল হোসেন তাইজেল,  বড় ছেলে আসাদুজ্জামান মিঠু ও ছোট ছেলে কামারুজ্জামান টিপু বাড়িতে ছিলেন না। তারা ব্যবসার কাজে বাগআঁচড়া বাজারে ছিলেন। এমন সময় দুইজন ডাকাত বাহিরে থেকে ও দুইজন ডাকাত মুখে কালো কাপড় বেঁধে ঘরে ঢুকে। এ সময় ডাকাতরা সাবেক  মহিলা ইউপি সদস্য মোছাঃ রাবেয়া খাতুনের গলা টিপে ধরে এবং তার গলা থেকে সোনার চেইন ছিনিয়ে নেয়। তখন বাড়ির শিশুরা ভয়ে চিৎকার করে।  এরপর ডাকাতরা অন্য ঘরে ঢুকে  কামরুজ্জামানের স্ত্রী তহুরা খাতুনকে বেদম ভাবে মারপিট করে আলমারি থেকে নগদ আড়াই লক্ষ টাকা লুট করে ডাকাতরা।  এ সময় সাবেক  মহিলা ইউপি সদস্য মোছাঃ রাবেয়া খাতুন সহ পরিবারের সদস্যরা আত্মচিৎকার করলে প্রতিবেশিরা ছুটে এলে ডাকাতরা পালিয়ে যায়।
ঐ রাতেই সাবেক  মহিলা ইউপি সদস্য মোছাঃ রাবেয়া খাতুনের বড় ছেলে বাগআঁচড়া আই সি পুলিশ কেন্দ্রে একটি অভিযোগ করে। জানাগেছে এ ঘটনায় পুলিশ এখনও ডাকাতির সোনার চেইন ও টাকা উদ্ধার করতে পারেনি।  আটক হয়নি কোন ডাকাত দলের সদস্য।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বাগআঁচড়া আইসি পুলিশ কেন্দ্রের এস আই আনোয়ার আজিম বলেন তিনি ও আই সি যশোরে ভোটের ডিউটিতে আছেন। এ ব্যাপারে তিনি কিছু জানেননা। ঘটনাটি জানার জন্য আইসিতে ডিউটি অফিসার এ এস আই ফিরোজ এর কাছে তার ব্যবহারিত মোবাইল নং ০১৯২৬১৯৪৮৬৩ তে বার বার ফোন দিলে তার মোবাইল বন্ধ ছিল।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে শার্শা থানা অফিসার ইন-চার্জ বদরুল আলম খান জানান, এ ব্যাপারে তিনি কিছু জানেন না। তবে অভিযোগ পেলে তা তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান।

Please follow and like us: