বেনাপোলে ৮ লাখ টাকার শড়ি ক্রিম সহ আটক ১

বেনাপোল পুলিশের অভিযানে ভারত থেকে পাচার করে আনা ২১০ পিছ উন্নত মানের শাড়ি, ১০০০ পিছ ক্লোবজি ক্রিম সহ একজন আটক হয়েছে। উদ্ধারকৃত পণ্যর মুল্য ৮ লাখ ২৮ হাজার ৫শত টাকা। চোরাই পণ্যটির চালান পৌরসভার ছোটআঁচড়া মোড়ের জুয়েল ভ্যারাইটিস স্টোর নামক একটি দোকান থেকে মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১০ টার সময় উদ্ধার হয়। এসময় থানার পৌর এলাকার সাদিপুর গ্রামের শাহ আলম এর ছেলে শাকিল খানকে (২২) আটক করে।

জুয়েল ভ্যারাইটিস স্টোরের মালিক জুয়েল রানা বলে আমি বিকাশ ও ফ্লেক্্ির লোডের পাশাপাশি ভারত থেকে বিভিন্ন পন্য এনে ব্যবসা করি। থানা পুলিশ আমার দোকান থেকে যে শাড়ি ক্রিম  উদ্ধার করেছে  সে মালটির মধ্যে আমার ৫০ হাজার টাকার মাল আর বাকি মালামাল ভারতীয় একজন মহাজনের। কি ভাবে এসব মাল পাচার করে আনা হলো তার জবাবে জুয়েল বলে এগুলো আমদানিকৃত পন্যর গাড়িতে আনা হয়। ওইসব গাড়ির চালকদের সাথে চুক্তি করে ভারত থেকে বাংলাদেশে প্রবেশ করানো হয়; এবং সুযোগ মত নামিয়ে নেওয়া হয়। তবে পুলিশ যে পণ্য আটক করেছে তার মুল্য দুই লাখ টাকার মত।

বেনাপোল পোর্ট থানার ওসি মামুন খান বলেন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ছোটআচড়া মোড় এলাকার জুয়েল ভ্যারাইটিস স্টোরে অভিযান চালিয়ে ভারতীয় আদি কাতান শাড়ী ১২৭ পিছ, কৈলাশ কাতান শাড়ী ৩৮ পিছ বেনারশী শাড়ী ৪৫ পিচ ক্লোবজি ক্রিম ১০০০ হাজার পিছ সহ শাকিল খান সামে একজন চোরাচালানিকে আটক করা হয়েছে। তার নামে বেনাপোল পোর্ট থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে। মামলা নং ৩৯, তারিখ ২০/১০/২০। আসামিকে যশোর আদালতে পাঠানো হয়েছে।

Please follow and like us: