নড়াইলের পল্লীতে অবসরপ্রাপ্ত কলেজ শিক্ষক অরুণ রায়কে গলা কেটে হত্যা

নড়াইলের পল্লীতে একটি বেসরকারি কলেজের অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক অরুণ কুমার রায়কে নিজ বাড়িতে গলাকেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। ঘটনাটি ঘটেছে, নড়াইল সদর থানার তুলারামপুর ইউনিয়নের বেনাহাটি গ্রামে। তবে ঘটনাটি শুক্রবার (২৩ অক্টোবর) রাত ৮টার পরে জানাজানি হয় বলে জানিয়েছে সদর থানা পুলিশ। নিহত অরুণ রায় মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর, খুলনা অঞ্চলের উপ-পরিচালক নিভা রাণী পাঠকের স্বামী। পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এলাকাবাসি ও পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, অবসরপ্রাপ্ত কলেজ শিক্ষক অরুণ রায় সদর থানার তুলারামপুর ইউনিয়নের বেনাহাটি গ্রামে একা বসবাস করতেন। তার স্ত্রী, এক ছেলে প্রকৌশলী এবং এক মেয়ে চিকিৎসক চাকরির কারণে জেলার বাইরে অবস্থান করেন। তারা মাঝে মাঝে ছুটিতে বাড়ি আসতেন। শুক্রবার সারাদিন থেকে অরুণ রায়ের কোন সাড়া শব্দ না পেয়ে সন্ধ্যার পর নিভা রাণী পাঠক ও তার ছেলে ইন্দ্রজিৎ রায় বাড়িতে এসে মই বেয়ে দ্বিতল ভবনের দরজা ভেঙ্গে ঘরে প্রবেশ করে চেয়ারের ওপর গলা কাটা অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করেন। সদর থানার তুলারামপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বুলবুল আহম্মেদ বলেন, বাড়িতে অরুণ রায় একাই থাকতেন। কেউ থাকতো না। এ ঘটনা গত রাতে ঘটতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। এ বিষয়ে সদর থানার ওসি ইলিয়াছ হোসেন নিহতের ঘটনা স্বীকার করে বলেন, অরুণ রায়ের হত্যার বিষয়টি পুলিশ বিভাগ শুক্রবার সন্ধ্যার পর জানতে পেরেছে। পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। হত্যার বিষয়ে পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে।

Please follow and like us: