কালিয়ায় পারিবাবিক কলহে যুবক খুন,আটক-৫

নড়াইল প্রতিনিধি
নড়াইলের কালিয়ায় স্বামী-স্ত্রীর কলহের জেরে রুবেল ব্যাপারী (২৮) নামে এক যুবক খুন হয়েছে। খুনের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে পুলিশ ৫জনকে আটক করেছে। সে পৌরসভার বড়কালিয়া গ্রামের শাহাদতের ছেলে। রোববার(২৪এপ্রিল) রাত সাড়ে ১১টার সময় পৌর শহরের বড়কালিয়া গ্রামে স্বামী-স্ত্রীর কলহ বাধলে রুবেল ব্যাপারী ঠেকাতে গেলে তার মাথায় ছুটুর ভাই লাঠি দিয়ে বাড়ি মারে। প্রথমে তাকে কালিয়ায়,পরে ওই রাতেই খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সোমবার (২৫এপ্রিল) ষ দুপুরে চিকিৎসা চলাকালীন সময় তার মৃত্যু হয়।
স্থানীয় ও পুলিশ সুত্রে জানা যায়, পৌর সভার বড়কালিয়া গ্রামের রহিমের মেয়ে ছুটু বিবির সঙ্গে একই গ্রামের কাঞ্চনের ৩-৪ বছর আগে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়। কাঞ্চন বিবাহের পর থেকে শ্বশুর রহিমের বাড়ীতে থাকত। কাঞ্চন ও স্ত্রী ছুটু বিবির মধ্যে পারিবারিক কলহ প্রায় লেগে থাকত। রোববার রাত সাড়ে ১১টার সময় প্রতি দিনের ন্যায় তাদের স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝকড়া বিবাদ শুরু হলে পার্শ্ববর্তী মৃত শাহাদতের ছেলে রুবেল ব্যাপারী ঠেকাতে গেলে তার মাথায় ছুটুর ভাই লাঠি দিয়ে বাড়ি মারে। এতে সে গুরুতর জখম হয়। প্রথমে কালিয়ায় পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য দ্রæত তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। ২৫ এপ্রিল দুপুরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। খুনের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে কালিয়া থানা পুলিশ ওই রাতেই ঘটনাস্থলে অভিযান চালিয়ে শ্বশুর আব্দুর রহিম মোল্যা (৫৫) , জসিম মোল্যা (১৯),কাঞ্চন মোল্যা (৩২),রুবেল মোল্যা (২১) ও রানা মোল্যাকে (২২) আটক করে।
কালিয়া থানার ওসি সেখ কনি মিয়া বলেন, ‘ঘটনাস্থল থেকে ৫ জনকে আটক করা হয়েছে। মামলা দাযেরের প্রস্তুতি চলছে।’

Please follow and like us:

আপনার মন্তব্য লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here