পছন্দের জামা না পেয়ে নড়াইলে স্কুল ছাত্রীর আত্মহত্যা

নড়াইলে মিতু দাস (১৫) নামে দশম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যার পর অভিমানে এ ঘটনা ঘটে। সে সদর উপজেলার বোড়াবাদুড়িয়া গ্রামের রতন দাসের মেয়ে। পুলিশ জানায়, আসন্ন শারদীয়া দূর্গাপূজা উপলক্ষ্যে বৃহস্পতিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) মিতুর জন্য তার বাবা একটি ত্রি-পিস কিনে আনেন। তবে ত্রি-পিসের জামার কাপড়ের একটি অংশে সামান্য কাটা থাকায় মিতু সেটি নিতে চায় না। তার বাবার শুক্রবার বাজার থেকে সেটি পাল্টিয়ে অন্য মডেলের একটি ত্রি-পিস এনে দেন। কিন্তু অন্য মডেল হওয়ায় মিতু পুনরায় বায়না ধরে। এতে তার অসুস্থ পিতা রেগে গিয়ে তাকে বকাবকি করলে সে ঘরে ডাবার সাথে গলায় শাড়ি পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে। পরিবারের লোকজন টের পেয়ে তাকে মুমুর্ষ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে নড়াইল আধুনিক সদর হাসপাতালে আনলে কর্তব্যরত ডাক্তার মিতুকে মৃত ঘোষণা করেন।
নড়াইল সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ ইলিয়াছ হোসেন জানান, এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে । তিনি আরো বলেন, এ ধারণের ঘটনা আগেও ঘটেছে পরিবারের উচিৎ এই বয়সের ছেলেমেয়েদের সাথে আচারণের ক্ষেত্রে আরো সচেতন হওয়া।

Please follow and like us: