সাতক্ষীরা আহছানিয়া মিশনের বর্তমান কমিটির নেতৃবৃন্দের অনিয়ম ও দুর্নীতির প্রতিবাদে মানববন্ধন

সাতক্ষীরা আহছানিয়া মিশনে বর্তমান কমিটির নেতৃবৃন্দের অনিয়ম ও দুর্নীতির প্রতিবাদে আহছানিয়া মিশন মাদ্রাসার সামনের সড়কে এক মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার জুম্মার নামাজের পর মসজিদের সাধারণ মুসুল্লিদের অংশগ্রহনে উক্ত মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়।
শেখ আজিজুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন তপু হাসিমী, এ্যাড ফারুক, মোঃ নাজমুল হক বকুল, জাহাঙ্গীর আলম, নুর ইসলাম । এ সময় বক্তারা বলেন, সাতক্ষীরার কৃতি সন্তান আন্তজার্তিক খ্যাতি সম্পন্ন শিক্ষাবিদ ও পীর এ কামেল খান বাহাদুর আহছানউল্লাহ (রহঃ) নামে প্রতিষ্ঠিত সাতক্ষীরা আহছানিয়া মিশন নিয়ে একটি কুচক্রি মহল এই মসজিদকে বাণিজ্যিকভাবে ব্যবহার করে নিজেদের আখের গোছাতে চেষ্টা করছে। খান বাহাদুর আহছানউল্লাহ সাতক্ষীরার গর্ব। সেই আহছানিয়া মিশনকে নিয়ে আমরা কোন ব্যবসা করার সুযোগ দিব না। আহছানিয়া মিশনের বর্তমানে যে সাধারন সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান উজ্জ্বল দায়িত্ব পালন করছেন তিনি একজন অশিক্ষিত ব্যক্তি। যিনি মাধ্যমিকের গন্ডি পার হতে পারেনি সেই অশিক্ষিত, মূর্খ সাধারন সম্পাদক আর কতোটুকু ভালো কাজ করতে পারবে? সেই প্রশ্ন তোলেন বক্তারা। সে তো পারবে সুদি কারবারি একটি ব্যাংককে ভাড়া দিয়ে মসজিদকে ছোট করে আহছানউল্লাহর কাজকে ছোট করার প্রয়াসতো তার থাকবেই। বর্তমান দুর্নীতিবাজ সাধারন সম্পাদকের বিরুদ্ধে ইতোমধ্যে আদালতে মামলা হয়েছে এবং তার বিরুদ্ধে আরো অনেক অভিযোগ আছে। সে নিজে এ মসজিদে নামায পড়তে আসে না। বক্তারা এই দুর্নীতিবাজ সাধারন সম্পাদকের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ গড়ে তুলে আহছানিয়া মিশনের কাজকে তরান্বিত করার আহবান জানান। তারা আরো বলেন আমরা আল্লাহর ঘর নিয়ে কথা বলতে এসেছি। আহছানিয়া মিশন কারো সুইট উইল বা ব্যক্তিগত সম্পত্তি বা অর্পিত সম্পত্তি নয়। আপনারা ইচ্ছামতো যা করছেন সেটি অন্যায় করেছেন তার জন্য মুসুল্লিদের কাছে ক্ষমা চেয়ে পূর্বের অনুমোদিত নকশা অনুযায়ী মসজিদ করার জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহন করার জন্য বলেন। মুসুল্লিদের ও মসজিদের স্বার্থ রক্ষার জন্য বর্তমান কমিটির নেতৃবৃন্দ ন্যায় পথে ও সৎ পথে আসবেন বক্তারা সেই আশা রাখেন।
এই মানববন্ধন কর্মসূচিতে সাধারন মুসুল্লি সহ শত শত ধর্মপ্রান মুসলিমগন অংশগ্রহন করেন।

Please follow and like us: