ঘূর্ণিঝড় বুলবুল-এর আঘাতে লন্ডভন্ড সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলা।

ঘূর্ণিঝড় বুলবুল-এর আঘাতে লন্ডভন্ড সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলা
সাতক্ষীরা প্রতিনিধি: প্রলয়ঙ্কারী ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ এর আঘাতে সাতক্ষীরা শ্যামনগর উপজেলার ১২টি ইউনিয়নে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। বিশেষ করে উপকূলীয় গাবুরা, পদ্মপুকুর, মুন্সিগঞ্জ, বুড়িগোয়ালিনী, আটুলিয়া, রমজাননগর ও কৈখালী ইউনিয়নে শতকরা ৮০ ভাগ কাঁচা ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। অধিকাংশ মৎস ঘের পানিতে তলিয়ে একাকার হয়েছে। গাছ-গাছালি ভেঙ্গে বিদ্যুৎ সরবরাহ লাইনে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। বিভিন্ন মাধ্যমে ও সরেজমিনে খোঁজ নিয়ে এমন তথ্য পাওয়া যায়।উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা ফারুক হোসাইন সাগর জানান, উপজেলায় ১৭ হাজার ৫০০ হেক্টর জমিতে ১৬ হাজার ৩২৮ টি মৎস্য ঘেরের মধ্যে ৩২৮টি মৎস্য ঘেরের মধ্যে ৩ হাজার ২৬৫টি প্লাবিত হয়েছে। এতে সাড়ে ৬ কোটি টাকার মাছ ভেসে গেছে।
উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আবুল হোসেন মিয়া জানান, ১২টি ইউনিয়নে ১৬ হাজার ৮১০ হেক্টর জমিতে আমন চাষ হয়। তার মধ্যে অতি বৃষ্টির কারনে ২০ শতাংশ আমন ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।শ্যামনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ কামরুজ্জামান জানান, চার ঘন্টা ব্যাপী ঘূর্ণিঝড়ে ১২টি ইউনিয়নে ১৭ হাজারেরও বেশি কাঁচা ঘরবাড়ি ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বিদ্ধস্ত হয়েছে। তাছাড়া আধাপাঁকা ঘরবাড়ি ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আংশিক ও পুরোপুরি ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। গাছ-গাছালি ভেঙ্গে বিদ্যুৎ ব্যবস্থা ব্যাপক ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে। মৎস্য ঘের ও আমন ফসল তলিয়ে কোটি কোটি টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে। উপজেলায় ২৭০ টি আশ্রয় কেন্দ্রে ৬০ হাজারেরও বেশি মানুষ আশ্রয় গ্রহণ করেছে এবং তাদের সার্বিক তত্ত্বাবধানের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

Please follow and like us: