বগুড়ায় যৌতুকের টাকা না পেয়ে স্ত্রীকে হত্যা, স্বামীর মৃত্যুদণ্ড

বগুড়ায় যৌতুকের টাকা না পেয়ে দ্বিতীয় স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা মামলায় স্বামীর মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তির নাম আব্দুল কুদ্দুস (৫৫)। ওই নিহত স্ত্রীর নাম মদিনা বেগম। বগুড়ার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালত-২ এর বিচারক নূর মোহাম্মদ শাহরিয়ার কবির বৃহস্পতিবার দুপুরে এই রায় দেন। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আব্দুল কুদ্দুস জেলার কাহালু উপজেলার লক্ষ্মীমণ্ডপ গ্রামের মৃত ওসমান আলীর ছেলে। রায় ঘোষণার সময় তিনি আদালতে হাজির ছিলেন। তবে এই হত্যা মামলার আরেক আসামী আব্দুল কুদ্দুসের প্রথম স্ত্রী জাহানারা বেগমকে খালাস দিয়েছে আদালত। এসব নিশ্চিত করেছেন সংশ্লিষ্ট আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অ্যাডভোকেট আশেকুর রহমান সুজন। প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালের ২০ জুলাই আব্দুল কুদ্দুস তার দ্বিতীয় স্ত্রী মদিনা বেগমকে পিটিয়ে হত্যা করেন। ১ লাখ টাকা যৌতুকের টাকা না পেয়ে আব্দুল কুদ্দুস তার দ্বিতীয় স্ত্রী মদিনা বেগমকে হত্যা করেন। পরে এই ঘটনায় মদিনা বেগমের মা রোকেয়া বেগম একটি হত্যা মামলা করেন। বগুড়া কাহালু উপজেলায় এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

Please follow and like us: