চিল

চিল
———————————————————
দেবদাস কর্মকার
জানালা গলিয়ে কড়িকাঠ ভেঙে আকাশ ছুঁয়েছে মেঘ
রোদ ভেঙে ভেঙে শীতের দুপুরে কেন এতো উদ্বেগ ,
এলোমেলো হাওয়া দূরে কানাগলি নেই মানষের ভীড়
শিরীষের সেই পুরানো শরীরে চিল বেধেছে নীড়,
চক্রাকারে ঘুরে ঘুরে উড়ে হয়না আকাশ ছোঁয়া
রোদ পড়ে এলে ক্লান্ত ডানায় শক্তি যায় যে খোয়া।

বন বাদারের জীবন ফেলে নাগরিক তবু চিল
টলটলে জলে স্বপ্ন ছোঁয়ায় মানস পটের বিল,
আকাশ থেকে দৃষ্টি নামিয়ে কংক্রিটের সারি
শ্যামলে সবুজে মুগ্ধতা ছেড়ে হৃদয় হয়েছে ভারি।

নিচের পৃথিবী অনেক জটিল ট্রাফিক জ্যমের মতো
লোভ লালসার আস্তাকুড়ে মানুষ মরেছে কতো,
নেই স্নেহ প্রেম উদার হৃদয় অমৃত মাতাল ফুল
আছে ক্লান্তি হলুদ বিকেল বিভ্রান্তি ভরা ভুল ।

শেষ্ঠত্বের খেদ,আছে ভেদাভেদ উন্মাদনার গান
আলো জ্বালানোর ঝাড় লন্ঠন কিভাবে হয়েছে ম্লান,
তীক্ষ্ন চাদরে ঘাড় মাথা ঢেকে সন্ত হয়েছে কতো
আবেশে আদরে কেটে যায় দিন চাকা না ঘোরার মতো।

তবু ওড়ে চিল মেঘ ছুঁয়ে ছুঁয়ে আকাশ কতোটা দূরে
দৃষ্টি যে তার নিচে পরে রয় চক্রাকারে ঘুরে,
মাথার উপরে বাস করে সে পায় না মনের খোঁজ
মানুষের মন এলোমেলো চালে বেঁচে রয় হর রোজ ।

——————————————————————–
ঢাকা 16/01/2020

Please follow and like us: